আমি পর্ন তারকা হওয়ার স্বপ্ন দেখিনি

0
1306

যদিও তিনি সবসময়ই আলোচনায় থাকেন, তবে এবারের ঘটনাটা একটু ভিন্ন। সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে তাকে এমন কিছু প্রশ্নের মুখোমুখি হতে হয়েছে , যেগুলোকে সবাই এক কথা বলছেন, ‘জঘন্য এবং যৌন বিদ্বেষমূলক’। 

sunny faced embarresing interview the mail bd

ভারতীয় বেসরকারি চ্যানেল সিএনএন-আইবিএনলাইভে সাংবাদিক ভুপেন্দর চৌবে সানি লিওনির সাক্ষাৎকার গ্রহণ করেন। সানিকে তার অতীত নিয়ে একের পর এক প্রশ্নবাণে বিদ্ধ করেন চৌবে, কিন্তু পুরোটা সময় বেশ নিজের মেজাজ একটুও বিগড়াতে দেননি সানি। বরং ভদ্রতা বজায় রেখেছেন এবং হাসিমুখে প্রশ্নের উত্তর দিয়ে গেছেন।

তাকে প্রশ্ন করা হয়, বলিউডে তার ক্যারিয়ারের উন্নতি কি তার অতীতের কারণে ব্যাহত হচ্ছে? তার কি মনে হয় তার পর্ন ক্যারিয়ার তাকে এখনও তাড়া করে বেড়ায়?

উত্তরে সানি বলেন, “তাড়া করে বেড়ানোর বিষয়টা গণমাধ্যমই আবিষ্কার করেছে, আমি কখনও বলি না আমার অতীত আমাকে তাড়া করে বেড়ায়।”

সানিকে জিজ্ঞেস করা হয়, “যদি ঘড়ির কাঁটা পেছনে ফেরানো যায়, তাহলে কি আপনি ঠিক সেই কাজগুলোই করবেন যা আপনি করেছিলেন?”

এই প্রশ্নের উত্তর দিতে একটুও দেরি করেননি সানি, স্মিত হাসি ধরে রেখে তিনি জানান অবশ্যই তিনি একই কাজগুলো করবেন।

সানিকে এমনও প্রশ্ন করা হয়, তিনি কি ছোটবেলা থেকেই পর্ন তারকা হওয়ার স্বপ্ন দেখেছিলেন?

এই প্রশ্ন শুনে কিছুটা থতমত খেয়ে যান সানি। নিজেকে সামলে নিয়ে তিনি বলেন, “কেউ পর্ন তারকা হওয়ার স্বপ্ন দেখে না, আমিও দেখিনি। তবে যখন আমি পর্ন তারকাদের ছবি দেখেছি, তখন আমার কাছে বিষয়টি অশ্লীল কিংবা খারাপ মনে হয়নি। বরং আমার কাছে তাদের সুন্দর লেগেছে। আমার মনে হয়েছে, তারা স্বাধীন এবং মুক্ত।”

সানিকে আরো বলা হয়, “অনেকেই ভাবছেন আপনি এখনও অভিনেত্রী হয়ে ওঠেননি, বরং হিন্দি সিনেমাতে আপনার উপস্থিতি চলচ্চিত্র শিল্পের মানদণ্ডকে আরও নিচে নামিয়ে দিচ্ছে।”

এক্ষেত্রে সানির ভাষ্য, তিনি মানুষের ব্যক্তিগত মতামতকে গুরুত্ব দেন না। বরং মন দিয়ে নিজের কাজ করে যেতে চান।

তবে সবচেয়ে বিতর্কিত প্রশ্ন ছিল, “আপনার কি ধারণা, আপনার দেহ আপনাকে কতদূর নিয়ে যাবে?”

এই প্রশ্নের উত্তরে সানি বলেন, “বলিউডে প্রত্যেক অভিনয়শিল্পীর জন্যই দৈহিক সৌন্দর্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। একজন শিল্পীর যত প্রতিভা থাকুক না কেন, দিনশেষে তাদের সুন্দর চেহারাই সবাই মনে রাখে। তাদের সুন্দর দেহ এবং চেহারা দেখতেই মানুষ টিকিট কেটে প্রেক্ষাগৃহে যায়। এটাই তো বিনোদন।”

সানি বলিউডে পা রাখার পর থেকে ভারতীয় সমাজে পর্নগ্রাফির প্রতি আসক্তি বেড়েছে বলে অভিযোগ করেন ভুপেন্দর চৌবে। সানির সিনেমা দেখে মানুষের মূল্যবোধ হ্রাস পাচ্ছে বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

এই সাক্ষাৎকারটি প্রচারের পর ব্যাপক সমালোচিত হন এই সিনিয়র সাংবাদিক। তবে তিনি তার ব্লগে স্বীকার করেন, শুধুমাত্র সানির অতীতকে টেনে এনে প্রচার পাওয়ার উদ্দেশ্যেই সাক্ষাৎকারটি নিয়েছেন তিনি।

সূত্রঃ আইবিএনলাইভ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here