শুক্রবার, মার্চ ১, ২০২৪

এসআই রতনকে গ্রেপ্তারের নির্দেশ

যা যা মিস করেছেন

এর আগে বুধবার শ্লীলতাহানির অভিযোগের সত্যতা পেয়েছে উল্লেখ করে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-৪ এ বিচার বিভাগীয় তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করেন ঢাকা মুখ্য মহানগর হাকিম শেখ হাফিজুর রহমান।  তদন্ত প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়, বেসরকারি আশা বিশ্ববিদ্যালয়ের ওই ছাত্রীকে এসআই রতন কুমার হালদার শ্লীলতাহানি করেছেন বলে প্রাথমিক তদন্তে প্রমাণ পাওয়া গেছে।

এ তদন্তে পাঁচজন সাক্ষীর জবানবন্দি রেকর্ড করা হয়েছে।  এদের মধ্যে দুজনকে নিরপেক্ষ বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ রয়েছে।

৩১ জানুয়ারি মোহাম্মদপুরের শিয়া মসজিদের কাছে এসআই রতন কুমার হালদার বেসরকারি আশা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগের প্রথম বর্ষের এক ছাত্রীকে হেনস্তা করেন বলে অভিযোগ ওঠে।

শ্লীলতাহানির অভিযোগে ১ ফেব্রুয়ারি সকালে ঢাকার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-৪-এর বিচারক সালেহ উদ্দিন আহমেদের আদালতে মামলা করতে যান ওই শিক্ষার্থী।  আদালত তার জবানবন্দি গ্রহণ শেষে বিচার বিভাগীয় তদন্তের নির্দেশ দেন।

ঘটনা তদন্তে ঢাকা মহানগর পুলিশ এবং পুলিশের তেজগাঁও বিভাগের পক্ষ থেকে দুটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়।  আর একই দিনই কে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়।

অনুমতি ব্যতিত এই সাইটের কোনো কিছু কপি করা কপিরাইট আইনে দণ্ডনীয়।

প্রিয় পাঠক অনলাইন নিউজ পোর্টাল দ্যামেইলবিডি.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন themailbdjobs@gmail.com ঠিকানায়।

More articles

সর্বশেষ