মঙ্গলবার, জুন ১৮, ২০২৪

ছুটি ছাড়াই টানা ২৩ মাস কর্মস্থলে অনুপস্থিত আটপাড়া জনস্বাস্থ্যের মেকানিক নয়ন

যা যা মিস করেছেন

কে. এম. সাখাওয়াত হোসেন: ছুটি ছাড়াই টানা ২৩ মাসে একদিনও কর্মস্থলে যাননি নেত্রকোনার আটপাড়া উপজেলা জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল কার্যালয়ের মেকানিক আতিকুর রহমান নয়ন।

তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশল ময়মনসিংহ বিভাগীয় কার্যালয়ের ২০২২ সালের ১৯ মে তারিখে ৪৬.০৩.৬১০০.০১৯১৯.২১-১৪৭৫ নং স্মারক মূলে আতিকুর রহমান নয়ন মেকানিককে নেত্রকোনার কলমাকান্দা উপজেলা জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল কার্যালয় হতে আটপাড়া উপজেলায় বদলীর আদেশ হয়। তিনি ৩০ জুন কলমাকান্দা উপজেলা কার্যালয় হতে ছাড়পত্র গ্রহণ করলেও আটপাড়া উপজেলা কার্যালয়ে যোগদান করেননি। ২০২২ সালের জুলাই মাস হতে অদ্যাবধি পর্যন্ত আটপাড়া উপজেলা জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল কার্যালয়ের হাজিরা খাতায় তার নাম থাকলেও কোনো উপস্থিতি স্বাক্ষর নাই।

মেকানিক আতিকুর রহমান নয়নের হাজিরা খাতায় স্বাক্ষর না থাকা প্রসঙ্গে উপসহকারী প্রকৌশলী জহিরুল ইসলাম বলেন, অত্র কার্যালয়ে তার বদলীর আদেশ হওয়ায় হাজিরা খাতায় নিয়মিত নাম উত্তোলন করা হলেও তিনি এখনো যোগদান করেননি। এ বিষয়ে নির্বাহী প্রকৌশলী মহোদয়কে একাধিকবার মৌখিকভাবে অবহিত করা হয়েছে।

কলমাকান্দা উপজেলা জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তরের উপসহকারী প্রকৌশলী নজরুল ইসলাম বলেন, মেকানিক আতিকুর রহমান নয়ন বড়খাপন, পোগলা ও কৈলাটি ইউনিয়নের দ্বায়িত্বে থাকাকালীন সাবমার্সিবল স্থাপনে সরকারি ফান্ডে ব্যাংকের মাধ্যমে জমাকৃত ডিডি’র পরিবর্তে উপকার ভোগীদের নিকট হতে নগদ টাকা গ্রহণ করেন। এছাড়াও তিনি বিভিন্নভাবে অর্থনৈতিক অনিয়মে জড়িয়ে পড়ায় তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশল ময়মনসিংহ বিভাগীয় কার্যালয়ের ২০২২ সালের ১৯ মে তারিখে আটপাড়া উপজেলা কার্যালয়ে বদলী করেন। অর্থনৈতিক অনিয়মের তিন লক্ষ টাকা পরিশোধ না করায় একই বছর ৩০ জুন ৪৬.০৩.৭২৪০.০৬৩.৩১১৯১৯-১৮১ নং স্মারকে তিনি ছাড়পত্র গ্রহণ করলেও অদ্যাবধি পর্যন্ত এলপিসি গ্রহণ করেন নি। বিষয়টি নির্বাহী প্রকৌশলী মহোদয় অবগত আছেন।

অভিযুক্ত মেকানিক আতিকুর রহমান নয়ন বলেন, ২০২২ সালের ১৯ মে তারিখে কলমাকান্দা উপজেলা জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তর কার্যালয় হতে বদলীর আদেশপ্রাপ্ত হয়ে ৩০ জুন অপরাহ্নে কলমাকান্দা অফিস থেকে ছাড়পত্র নিয়ে ১ জুলাই আটপাড়া উপজেলা জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তর কার্যালয়ে যোগদান করতে গেলে উপসহকারী প্রকৌশলী জহিরুল ইসলাম এলপিসি ছাড়া যোগদান পত্র গ্রহণ করেন নি।

কলমাকান্দা অফিস থেকে এলপিসি না দেওয়া প্রসঙ্গে তিনি বলেন, অর্থনৈতিক অনিয়মের তিন লক্ষ টাকা পরিশোধ না হওয়ায় তিনি এলপিসি দেননি। অর্থনৈতিক অনিয়মের তিন লক্ষ টাকা প্রথমে অস্বীকার করলেও পরবর্তীতে তিনি স্বীকার করেন। দ্রুত সময়ের মধ্যে টাকা পরিশোধ করে এলপিসি গ্রহণ করবেন বলে তিনি জানান। প্রায় ২৩ মাস অফিস না করা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, এলপিসি না নিয়ে যাওয়ায় আটপাড়া জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল কার্যালয়ের উপসহকারী প্রকৌশলী তাকে কোন কাজ না দেওয়ায় তিনি অফিসে যান না।

জেলা নির্বাহী প্রকৌশলী মুহাম্মদ মশিউর রহমান বলেন, নেত্রকোনা কর্মস্থলে যোগদানের পর তৎকালিন সংসদ সদস্য মানু মজুমদার মেকানিক আতিকুর রহমান নয়নকে তার অর্থনৈতিক অনিয়মের কারণে কলমাকান্দা হতে বদলীর জন্য বলেন। আমি সংসদ সদস্য মহোদয়ের নির্দেশ অনুযায়ী তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশল ময়মনসিংহ বিভাগীয় কার্যালয়ে চিঠি প্রেরণ করি। তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশল ময়মনসিংহ বিভাগীয় কার্যালয়ের ২০২২ সালের ১৯ মে তারিখে নং ৪৬.০৩.৬১০০.০১৯১৯.২১-১৪৭৫ স্মারক মূলে আতিকুর রহমান নয়ন মেকানিককে কলমাকান্দা উপজেলা জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল কার্যালয় হতে আটপাড়া উপজেলায় বদলীর আদেশ প্রদান করেন।

দীর্ঘদিন যাবৎ মেকানিক আতিকুর রহমান নয়ন আটপাড়া কর্মস্থলে যোগদান করেন নি বা কর্মস্থলে যান না এ বিষয়ে আটপাড়া উপজেলা উপসহকারী প্রকৌশলী তাকে লিখিত ভাবে কিছু জানান নি। তবে পূর্বের কর্মস্থল কলমাকান্দা উপজেলায় বিভিন্ন অর্থনৈতিক অনিয়মের বিষয়ে তিনি অবহিত। যা এখনো তিনি (নয়ন) পরিশোধ করেন নি বলে জানান নির্বাহী প্রকৌশলী মুহাম্মদ মশিউর রহমান।

অনুমতি ব্যতিত এই সাইটের কোনো কিছু কপি করা কপিরাইট আইনে দণ্ডনীয়।

প্রিয় পাঠক অনলাইন নিউজ পোর্টাল দ্যামেইলবিডি.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন themailbdjobs@gmail.com ঠিকানায়।

More articles

সর্বশেষ