শনিবার, জুন ১৫, ২০২৪

মদনে ভূমি অফিসের কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ইউপি সদস্যকে লাঞ্ছিত করার অভিযোগ

যা যা মিস করেছেন

দেওয়ান রানা, মদন (নেত্রকোনা) প্রতিনিধিঃ নেত্রকোনার মদনে শরীফ আহম্মেদ নামের এক ইউপি সদস্যকে লাঞ্ছিত করার লিখিত অভিযোগ পাওয়া গেছে সৈয়দ জাহাঙ্গীর আলম নামের এক ইউনিয়ন সহকারি ভূমি কর্মকর্তার বিরুদ্ধে।

বিচারের দাবিতে ভুক্তভোগী ইউপি সদস্য নেত্রকোনা জেলা প্রশাসক বরাবর লিখিত অভিযোগটি দায়ের করেন।

ভুক্তভোগী শরীফ আহম্মেদ উপজেলার গোবিন্দশ্রী ইউনিয়নের ২ নম্বর ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য। সৈয়দ জাহাঙ্গীর আলম একই ইউনিয়নের সহকারি ভূমি কর্মকর্তা হিসেবে কর্মরত রয়েছেন।

লিখিত অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, গোবিন্দশ্রী বারঘরিয়া গ্রামে একটি ফুটবল খেলার মাঠ রয়েছে। ওই মাঠটি বিআরএস মূলে গোবিন্দশ্রী গ্রামের মস্তু মিয়াসহ কয়েকজন ব্যাক্তি মালিকানা দাবি করেন। বিষয়টি নিয়ে সমস্যা সৃষ্টি হলে নায়েব জাহাঙ্গীর আলম মাঠে যেতে লোকজনকে নিষেধ করে। কিন্তু ১৪ মার্চ বিআরএস মূলের মালিকানা দাবি করা মস্তু মিয়া তাদের লোকজন নিয়ে চাষাবাদ করতে চাইলে স্থানীয় লোকজন বাঁধা প্রদান করেন। এ নিয়ে উত্তেজনার সৃষ্টি হলে স্থানীয় ইউপি সদস্য দুই পক্ষকে শান্ত করেন। পরে ওই দিন বিকেলে পুলিশ নিয়ে গোবিন্দশ্রী বাজারে যান ইউনিয়ন সহকারি ভূমি কর্মকর্তা সৈয়দ জাহাঙ্গীর আলম। মাঠের এই সমস্যার জন্য ইউপি সদস্য শরীফ আহম্মেদ কে দায়ী করে গালমন্দ করে। এক পর্যায়ে উত্তেজিত হয়ে বাজারের শতাধিক লোকজনের সামনে ইউপি সদস্য শরীকে শার্টের কলার চেপে ধরে মারধর করতে উদ্ধত হয়। পরে তাকে প্রাণ নাশের হুমকি দেওয়া হয় বলে লিখিত অভিযোগে উল্লেখ রয়েছে।

ইউপি সদস্য শরীফ আহম্মেদ জানান,‘গ্রামের ফুটবল খেলার মাঠ নিয়ে দুই পক্ষের মধ্যে ঝামেলা চলছে। আমি জনপ্রতিনিধি হিসাবে সমস্যা সমাধানের চেষ্টা করছি। ১৪ মার্চের সমস্যার পর নায়েব জাহাঙ্গীর পুলিশ নিয়ে গোবিন্দশ্রী বাজারে আসে। ক্ষমতার প্রভাব কাটিয়ে বাজারে শতশত লোকের সামনে আমাকে গালমন্দ করে। এক পর্যায়ে আমার শার্টের কলার চেপে ধরে মারধর করে চায়। বিচার চেয়ে আমি (১৯ মার্চ) জেলা প্রশাসক বরাবর লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছি।’

গোবিন্দশ্রী ইউনিয়নের সহকারি ভূমি কর্মকর্তা সৈয়দ জাহাঙ্গীর আলম জানান,‘আমি ইউপি সদস্য শরীফকে লাঞ্ছিত করিনি। সে আমার সাথে খারাপ আচরণ করেছে। এ বিষয়ে আমি লিখিত অভিযোগ করেছি।

গোবিন্দশ্রী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মাইদুল ইসলাম খান জানান, আমার পরিষদের সদস্য শরীফকে নায়েব ধাক্কা দিয়ে লাঞ্ছিত করেছে বলে শুনেছি। বিষয়টি বিস্তারিত জানার জন্য ওই এলাকায় যাচ্ছি।

উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) এ টি এম আরিফ জানান,‘ গোবিন্দশ্রী সহকারী ভূমি কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ইউপি সদস্যর লিখিত অভিযোগের বিষয়টি জেনেছি। এ বিষয়ে প্রতিবেদন দাখিল করার জন্য ইউএনও স্যার নির্দেশ দিয়েছেন।’

অনুমতি ব্যতিত এই সাইটের কোনো কিছু কপি করা কপিরাইট আইনে দণ্ডনীয়।

প্রিয় পাঠক অনলাইন নিউজ পোর্টাল দ্যামেইলবিডি.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন themailbdjobs@gmail.com ঠিকানায়।

More articles

সর্বশেষ