বুধবার, জুন ১২, ২০২৪

নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীকে যৌন হয়রানি করা শিক্ষককে স্থায়ী বহিষ্কার

যা যা মিস করেছেন

শাকিল বাবু
নজরুল বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি

জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের মানব সম্পদ ব্যবস্থাপনা বিভাগের শিক্ষার্থী সায়েদা সানজানা আহসানা ছোয়াকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে উত্যক্ত করার অভিযোগ তদন্ত সাপেক্ষে অভিযুক্ত শিক্ষক সাজন সাহাকে স্থায়ী বহিষ্কার ও রেজোয়ান আহমেদ শুভ্রকে সাময়িক বহিষ্কার করেছে ৮৪তম বিশেষ সিন্ডিকেট সভা।

বৃহস্পতিবার (১৪ মার্চ) তারিখে সকাল ১১.৩০ ৮৪ তম বিশেষ সিন্ডিকেট সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সিন্ডিকেট সভার পর এক বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে বহিষ্কারের বিষয়ে জানানো হয়। বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, হিউম্যান রিসোর্স ম্যানেজমেন্ট বিভাগের উদ্ভূত পরিস্থিতিতে বিভাগের সহকারী অধ্যাপক জনাব সাজন সাহাকে চূড়ান্তভাবে বরখাস্ত ও সহযোগী অধ্যাপক জনাব রেজুয়ান আহমেদ শুভ্রকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ কর্তৃক গঠিত উচ্চক্ষমতা সম্পন্ন তদন্ত কমিটির কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে।

সিদ্ধান্ত প্রদান পরবর্তী বক্তৃতায় উপাচার্য অধ্যাপক ড. সৌমিত্র শেখর বলেন, নজরুল বিশ্ববিদ্যালয় এখন উন্নয়নের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। এখানে কোন অপকর্মের জায়গা হবে না। তিনি নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র শিক্ষককে একটা পরিবারের ন্যায় থাকার আহ্বান জানান। যেখানে বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল শিক্ষার্থী নিরাপদে জ্ঞান চর্চায় মনোনিবেশ করতে পারবে।
তিনি তার বক্তব্যে এই ঘটনাকে একটা অপ্রত্যাশিত ঘটনা বলে আখ্যায়িত করেন এবং এই রকম ঘটনা ভবিষ্যতে আর কখনো ঘটবে না বলেই আশাবাদ ব্যাক্ত করেন।

সবশেষে উপাচার্য নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল ছাত্র শিক্ষককে বিশ্ববিদ্যালয়ের মান সম্মান যথাযথভাবে রক্ষা করার আহ্বান জানান এবং বিশ্ববিদ্যালয়কে জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পর্যায়ে নিয়ে যাওয়ার প্রতিশ্রুতি ব্যাক্ত করেন।

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনের এই রায়ে সন্তুষ্ট সাধারন শিক্ষার্থী। অভিযুক্তদের রায় পরবর্তী সময়ে সাধারন শিক্ষার্থীদের আনন্দ মিছিল করতেও দেখা যায়। যা প্রশাসনিক ভবন থেকে শুরু হয়ে ব্যবসায় প্রশাসন অনুষদের সামনে শেষ হয়। সেখানে গনমাধ্যমের সামনে শিক্ষার্থীরা তাদের সন্তুষ্টির কথা জানান এবং উপাচার্যকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন।

উল্লেখ্য, বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারন শিক্ষার্থীরা এই ন্যাক্কারজনক ঘটনার সুষ্ঠু তদন্তের সাপেক্ষে তাদের দাবির পরিপ্রেক্ষিতে গত ১৩ দিন যাবৎ বিচারের দাবিতে আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছিলো।

অনুমতি ব্যতিত এই সাইটের কোনো কিছু কপি করা কপিরাইট আইনে দণ্ডনীয়।

প্রিয় পাঠক অনলাইন নিউজ পোর্টাল দ্যামেইলবিডি.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন themailbdjobs@gmail.com ঠিকানায়।

More articles

সর্বশেষ