হিন্দু সম্প্রদায়ের উপর হামলার প্রতিবাদে বশেমুরবিপ্রবি শিক্ষক সমিতির মানববন্ধন - দ্যা মেইল বিডি / খবর সবসময়
সারা বাংলা

হিন্দু সম্প্রদায়ের উপর হামলার প্রতিবাদে বশেমুরবিপ্রবি শিক্ষক সমিতির মানববন্ধন

শাহ মো জহরুল ইসলাম,বশেমুরবিপ্রবি প্রতিনিধিঃ-  গোপালগঞ্জের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বশেমুরবিপ্রবি) শিক্ষক সমিতি কর্তৃক দেশব্যাপী হিন্দু সম্প্রদায়ের উপর সম্প্রাদয়িক হামলার প্রতিবাদ ও দোষীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

আজ শনিবার দুপুর ১২টায়(২৩অক্টোবর) বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসে এই মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।উক্ত মানববন্ধনে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ড.এ.কিউ. এম মাহবুব, বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ড.মোঃরাজিবুর রহমান, শিক্ষক সমিতির সভাপতি ড.মোঃকামরুজ্জামান,সাধারণ সম্পাদক ড.মোঃআবু সালেহ সহ বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন।

মানববন্ধনে উপাচার্য ড.এ.কিউ.এম.মাহবুব বলেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠত হাওয়ার সময় আমাদেরকে অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ উপহার দিয়ে গেছেন।যা বাংলাদেশের সীমানার মধ্যে অবস্থানরত সকল মানুষ বাংলাদেশী এবং বাঙ্গালী।বঙ্গবন্ধু আমাদেরকে এই আদর্শ শিখিয়ে গেছেন। কিন্তু এখনো এই দেশে বঙ্গবন্ধুর আদর্শ কে লালন করে না এমন মানুষ এখনো অবস্থান করছেন। যারা এখনো দেশের মধ্যে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করে যাচ্ছে। এই অপশক্তিই আজ দেশের মধ্যে সাম্প্রদায়িক বিভিন্ন ঘটনা ঘটাচ্ছে।
তিনি আরো বলেন যে সকল মুসলিম হিন্দুদের বাড়িঘরে ও মুন্দিরে হামলা করছে তারা প্রকৃত মুসলিম নয়। আমাদের রসূল আমাদের কে এই শিক্ষা দেয় না। সেই সাথে তিনি দেশের বিভিন্ন স্হানে ঘটে যাওয়া সাম্প্রদায়িক ঘটনার পিছনে দায়ীদের কে খুজে বের করে বিচারের আওতায় আনার দাবি জানায়।

শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক ড.মোঃআবুসালেহ বলেন আমাদের প্রিয় সনাতন ভাইদের উপর যে নেক্যারজনক হামলা হয়েছে তার তিব্ব নিন্দা জানাচ্ছি। আমাদের এই বাংলাদেশ একটি অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ। যেখানে হাজার বছর ধরে হিন্দু, মুসলিম, খ্রিষ্ঠান সহ বিভিন্ন ধর্মের মানুষ বসবাস করছে।কিন্তু আজ আমাদের এই সম্প্রীতির মধ্যে আজ একটি মহল কল্পিত ভাবে ফাটল সৃষ্টি করছে।এই ঘৃণ্য ন্যাক্যার জনক কাজের প্রতিবাদ জানায়।এবং এই ঘটনার দ্রুত বিচার দাবি করছি।

Show More

এই বিভাগের আর খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close