26 C
Dhaka
বুধবার, ফেব্রুয়ারি ৮, ২০২৩

যুক্তরাষ্ট্রে এক পরিবারের আটজনকে গুলি করে হত্যা

যা যা মিস করেছেন

USA the mail bd
মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ওহিও অঙ্গরাজ্যের গ্রাম্য এলাকায় চারটি ভিন্ন অবস্থানে গুলি করে আটজনকে হত্যা করা হয়েছে। রাজ্যের অ্যাটর্নি জেনারেল একটি বিবৃতিতে জানিয়েছে নিহত সাতজন পূর্ণ বয়স্ক ও একজন কিশোর একই পরিবারের সদস্য।
জানা গেছে সবাইকে মাথায় গুলি করে হত্যা করা হয়েছে। এই হত্যাকাণ্ডের সন্দেহভাজনদের এখনো খুঁজছে পুলিশ। স্থানীয় এক বাসিন্দা জানিয়েছেন, পারিবারিক গণ্ডগোলের কারণে এই হত্যাকাণ্ড হয়ে থাকতে পারে।

এই হত্যাকাণ্ড কে বা কারা ঘটিয়েছে, তার অনুসন্ধানে ৩০ জনের বেশি ব্যক্তিকে পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদ করেছে।

নিহতদের মধ্যে একজন ১৬ বছর বয়সী কিশোর, অন্যরা সব প্রাপ্ত বয়স্ক বলে জানিয়েছেন পাইক কাউন্টির শেরিফ চার্লস রিডার। হামলায় তিন শিশু রক্ষা পেয়েছে বলে জানান তিনি।

ওয়াইয়োর অ্যাটর্নি জেনারেল মাইক ডিওয়াইন এক সংবাদ সম্মেলনে বলেছেন, নিহতরা সবাই রোহডেন পরিবারের সদস্য।

খুনি কারা- এই প্রশ্নে তিনি বলেন, “আমরা এখনও জানি না খুনি কি একজনই ছিল, না কি দুজন, না  কি তিনজন অথবা তারও বেশি।”

‘স্থানীয় কোন ঘটনা’র সূত্র ধরে এই সহিংসতা হয়ে থাকতে পারে বলে ঘটনাস্থলে থাকা এক যাজক জানিয়েছেন।

শেরিফ চার্লস রিডার বলেন, “অস্ত্রধারী ও ভয়াবহ বিপজ্জনক কোনো খুনি এই হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছে বলে সন্দেহ করা হচ্ছে।”

শেরিফ জানান, পুলিশ এখনও ঘটনার কারণ উদঘাটন করতে পারেনি।

নিহতদের কাউকে কাউকে ‘আগের রাতেই হত্যা করা হয়ে থাকতে পারে’ বলে ধারণা করছেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাইক ডিওয়াইন।

“বেশ কয়েকজনের মৃতদেহ তাদের বিছানায় পাওয়া গেছে। এদের মধ্যে একজন মা’ও আছেন। পাশেই তার চারদিন বয়সী একটি শিশু ঘুমিয়ে ছিল।”

 

ওহাইও’র গভর্নর ও মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে রিপাবলিকান দলের মনোনয়নপ্রত্যাশী জন কাসিচ এক টুইট বার্তায় এ ঘটনায় শোক জানিয়েছেন।

More articles

সর্বশেষ