ভারতের কেরালা রাজ্যের মন্দিরে আগুন : নিহত শতাধিক

0
438

India the mail bd

ভারতের কেরালা রাজ্যে বর্ষবরণ উৎসবের প্রস্তুতির মধ্যে এক মন্দিরে আতশবাজির স্তূপে বিস্ফোরণ ও অগ্নিকাণ্ডে নিহতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১০৬ জনে।

স্থানীয় কর্মকর্তাদের বরাত দিয়ে ভারতীয় গণমাধ্যমগুলো বলছে, রবিবার ভোরের আগে বন্দরনগরী কোলামের পারাভুর এলাকায় পুতিঙ্গাল দেবীর ওই মন্দিরে আহত হয়েছেন আরও সাড়ে তিন শ মানুষ।

বাংলাদেশের মতো কেরালার মানুষও আগামী বৃহস্পতিবার বর্ষবরণের উৎসব করবে। মালায়ালাম পঞ্জিকা অনুযায়ী, মেদাম মাসের প্রথম দিন এই উৎসব হয়, যার নাম বিশু। নতুন পোশাকে সেজে বিপুলসংখ্যক মানুষ উৎসবে অংশ নেন। আর কেরালায় বিশু উৎসবে অন্যতম অনুষঙ্গ হলো আলোকসজ্জা ও আতশবাজির প্রদর্শনী।

বিবিসি জানিয়েছে, বিশুর জন্য পুতিঙ্গাল মন্দিরের কাছেই স্তূপ করে রাখা হয়েছিল আতশবাজি। সেখানে রাত সাড়ে ৩টার দিকে বিস্ফোরণ ঘটলে বিস্ফোরণের ধাক্কায় মন্দিরের একটি ভবন ধসে পড়ে এবং আগুন ধরে যায়। পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা রবিবার সকাল সাড়ে ৬টার পর পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন, শুরু হয় উদ্ধারকাজ।

মারাত্মক দগ্ধদের পাঠানো হয় কেরালার রাজধানী থিরুভানানথাপুরামে। স্থানীয় গণমাধ্যমের খবরে বলা হয়, পার্বণে যোগ দিতে হাজার হাজার হিন্দু ভক্ত রাতে ওই মন্দিরে জড়ো হয়েছিলেন। বিস্ফোরণে ভবন ধসের কারণেই বেশির ভাগ মানুষের মৃত্যু হয়েছে।

ঘটনা তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন কেরালার স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রমেশ চেন্নিথালা। মন্ত্রী বলেন, এ ঘটনায় এখনো যারা আটকে আছে, তাদের উদ্ধারে সব চেষ্টা করা হচ্ছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আছে।

হতাহতের ঘটনায় ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি গভীর দুঃখ প্রকাশ করেছেন। তিনি কেরালায় যাচ্ছেন। তাঁর সঙ্গে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের একটি দলও থাকছে।

উদ্ভূত পরিস্থিতিতে কেরালা সরকারকে সব ধরনের সহযোগিতা দিতে মন্ত্রিপরিষদসচিবকে নির্দেশনা দিয়েছেন মোদি।

আগুনে হতাহতের ঘটনায় গভীর দুঃখ প্রকাশ ও সমবেদনা জানিয়েছেন কেরালার মুখ্যমন্ত্রী ওমেন চণ্ডী। তিনি দুর্ঘটনাস্থলের দিকে রওনা হয়েছেন।

কেরালা প্রশাসনের ভাষ্য, প্রতিযোগিতামূলক ওই আতশবাজির জন্য তারা অনুমতি দেননি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here