26 C
Dhaka
বুধবার, ফেব্রুয়ারি ৮, ২০২৩

প্রার্থনার মধ্য দিয়ে বড়দিনের আনুষ্ঠানিকতা শুরু

যা যা মিস করেছেন

শোভাযাত্রা ও প্রার্থনার (খ্রিস্টযাক) মধ্য দিয়ে শুরু হয়েছে খ্রিস্টান ধর্মাবলম্বীদের সবচেয়ে বড় উৎসব যিশু খ্রিস্টের জন্মদিন তথা বড়দিন। রাজধানীর তেজগাও রাণী যপমালা চার্চে বৃহস্পতিবার (২৪ ডিসেম্বর) রাত সাড়ে ৮টায় বড়দিনের আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়েছে।

christmas the mail bd

এ উপলক্ষে ক্রিসমাস ট্রি, লাইটিংসহ প্রভৃতি অনুষঙ্গ দিয়ে বর্ণিল সাজে সাজানো হয়েছে এ চার্চটি। রয়েছে সান্তা ক্লজ।

প্রার্থনায় সারা বিশ্বের মানুষের জন্য শান্তিকামনা করা হয়। প্রার্থনা পর্বের পর চার্চ প্রাঙ্গণে অনুষ্ঠিত হবে কীর্তন। ভক্ত শুভানুধ্যায়ীরা নেচে গেয়ে উদযাপন করছেন যিশু খ্রিস্টের জন্মদিন।

খ্রিস্টান ধর্মাবলম্বী নিপুল দালবত বলেন, বড়দিন সবার জন্যই আনন্দের একটি দিন। যিশুর কাছে সব মানুষের জন্য শান্তি কামনা করে প্রার্থনা করেছি।

তেজগাও চার্চের প্রধান ফাদার আলবার্ট রোজারিও বড়দিন উপলক্ষে বাংলানিউজকে বলেন, বড়দিন বিশ্ববাসীর জন্য বড় আনন্দের, এদিন বেথলেহেমের এক গোশালায় মাতা মেরির গর্ভ থেকে যিশুর জন্ম হয়। পৃথিবীর সব মানুষের জন্য শান্তির বাণী নিয়ে আসেন তিনি।

তেজগাঁও যপমালা চার্চসহ রাজধানীর সাতটি চার্চ ও দেশের অন্যান্য চার্চে শুক্রবার যথাযোগ্য মর্যাদায় বড়দিন উদযাপন করা হবে।

শুক্রবার সকাল ৭টা, ৯টা ও ১১টায় বিভিন্ন চার্চে প্রার্থনাসহ নানা অনুষ্ঠানের মাধ্যমে দিনটি উদযাপন করবেন খ্রিস্টান ধর্মাবলম্বীরা।

More articles

সর্বশেষ